বিউটি টিপস
সৌন্দর্য এবং হেলথ টিপস

বয়ফ্রেন্ড বা স্বামীর পোশাকেও আপনাকে দারুণ স্টাইলিশ দেখাবে, জানেন তো?

0 3

বয়ফ্রেন্ড বা স্বামীর পোশাকেও এমন কেউ আছেন নাকি, যিনি কখনও বয়ফ্রেন্ড বা স্বামীর আলমারি হাতড়ে তাঁর টি শার্ট, সোয়েটার, জিনস বা জ্যাকেট গলিয়ে নেননি কখনও? সত্যি কথা বলতে কী, অ্যান্ড্রোজেনাস বা পুরুষালি পোশাক-আশাক বরাবরই ফ্যাশন সচেতন মেয়েদের নজর কেড়েছে। ঠিকভাবে স্টাইল করতে পারলে তা দিয়ে দারুণ ফ্যাশন স্টেটমেন্টও তৈরি করা যায় কিন্তু! আকারে একটু বড়ো টি শার্ট নট বেঁধে পরা যায়, আলিয়ার মতো হাফ অ্যান্ড হাফ ডেনিম জ্যাকেটও লম্বা সফরের সময় হাতের কাছে রাখতে পারেন, ফিটেড জিনস-শার্টের সঙ্গে দেখতে চমৎকার লাগবে! যাঁরা এখনও এই ট্রেন্ড ট্রাই করে দেখেননি, তাঁদের জন্য রইল কয়েকটি খুব কার্যকর টিপস বয়ফ্রেন্ড বা স্বামীর পোশাকেও

এক নম্বর, ওভারসাইজ়ড জ্যাকেট, হুডিজ়, শার্ট বা টি শার্ট যা-ই পরুন না কেন, সঙ্গে স্কিনি, ক্রপড জিনস পরলে দেখতে ভালো লাগবে। লেগিংসের সঙ্গেও পরা যেতে পারে অবশ্য। সেই সঙ্গে পায়ে গলিয়ে নিন আরামদায়ক ব্লক হিল। লোফার বা ব্রোগ-ও দেখতে খুব ভালো লাগে। পরতে পারেন বুট বা আপনার প্রিয় স্নিকার্সও

দু’ নম্বর, বড়ো শার্ট বা টি শার্ট স্বচ্ছন্দে ড্রেসের মতো করে পরা যায়। কোমরের কাছে সরু বেল্ট পরে নিলেই পোশাকের মধ্যে একটা ফর্ম চলে আসবে। এই ধরনের পোশাকের হাতায় দুটো ফোল্ড দিয়ে নিতে পারেন, তা হলে হাতার বাড়তি ঝুলটাও চোখে পড়বে না আলাদা করে।

তিন, ছেলেদের বাটন ডাউন শার্ট স্বচ্ছন্দে আপনার প্রিয় স্কার্টের মধ্যে গুঁজে পরা যায়। টি শার্ট বা ট্যাঙ্ক টপের উপরেও সুতির শার্ট জ্যাকেটের মতো গলিয়ে নিতে পারেন।

চার, ঢিলেঢালা ডেনিম বা সোজা কথায় যাকে বয়ফ্রেন্ড জিনস বলে, তা কিন্তু দারুণ ফ্যাশনেবল। আমাদের দেশের আবহাওয়ায় বয়ফ্রেন্ড জিনস পরা অত্যন্ত আরামদায়কও বটে। নিজের লুজ় ফিট প্যান্ট থাকলে ভালো কথা, না হলে ধার নিন বয়ফ্রেন্ডের থেকেই।

পাঁচ, লোফার,অক্সফোর্ড, ব্রোগের মতো জুতো রাখতে হবে সংগ্রহে। আর পায়ের সাইজ় এক হলে স্নিকার্স তো ঘুরিয়ে-ফিরিয়ে পরাই যায়!

Beauty Tips English

মন্তব্য
Loading...